ঢাকা,
মেনু |||

বাবুগঞ্জে লবনের দাম ১২০ টাকা !

রহমাতুল্লাহ রুবেল, বাবু্গঞ্জ ॥ কতিপয় প্রভাবশালী অসাধু ব্যবসায়ীদের সিন্ডিকেটের কারণে গত কয়েক মাস ধরেই পেঁয়াজের আকাশচুম্বি দামের কারণে সারাদেশের মানুষ দিশেহারা। পেঁয়াজের দাম নিন্মমুখী করতে সরকারীভাবে ইতোমধ্যে ব্যাপক পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। পেঁয়াজের বাজার যখন গরম ঠিক সেই মুহুর্তে বাড়িয়ে দেয়া হয়েছে চাল ও নিত্য প্রয়োজনীয় লিকুইড পেট্রলিয়াম গ্যাস (এলপিজি)। রান্নার কাজে নিত্য ব্যবহার্য্য এ পণ্যটির দাম প্রতি সিলিন্ডারে বেড়েছে একলাফে ১২০ টাকা। এরইমধ্যে আজ মঙ্গলবার দুপুর থেকে হঠাত করেই বরিশালের বিভিন্ন হাট ও বাজারে লবণের প্রতিকেজি দাম একশ’ টাকা করে বিক্রি করা হচ্ছে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, দক্ষিণাঞ্চলের সর্ববৃহত ব্যবসায়ী বন্দর গৌরনদীর টরকী,শিকারপুর,শরিকল,বাবুগঞ্জ বাজার সহ একাধিক বাজারে মঙ্গলবার দুপুর থেকে বিভিন্ন খুচরা ও পাইকারী বাজারে লবণের দাম বেড়েছে বলে গুজব ছড়িয়েছে এক শ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ীরা। এমন খবর পেয়েই ক্রেতারা আগেভাগে লবণ ক্রয় করতে ভিড় জমিয়েছেন বিভিন্ন দোকানে। খুচরা ব্যবসায়ীরাও সুযোগ বুঝে পূর্বের প্রকার ভেদে ২৫ টাকার কেজি দরের মোটা লবণ ৭০ টাকা ও ৩৫ টাকা দামের চিকন লবণ একশ’ টাকা কেজি দরে বিক্রি করেছেন। নাম প্রকাশ না করার শর্তে একাধিক খুচরা লবণ বিক্রেতারা জানান, মাত্র এক ঘন্টার ব্যবধানে ঐ সকল প্রতিটি বন্দরের প্রতিটি দোকানের লবণ বিক্রি হয়ে গেছে। ওই বন্দরের অন্যান্য ব্যবসায়ীরা জানান, একশ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ীরা সিন্ডিকেট করে লবণের দাম বাড়িয়েছে প্রচার করলে মুহুর্তের মধ্যে ভিড় জমে যায় বিভিন্ন দোকানে। সরেজমিনে দেখা গেছে, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী থেকে শুরু করে সব শ্রেনী ও পেশার মানুষ একসাথে ৮/১০ কেজি করে লবণ ক্রয় করে নিচ্ছেন। লবনের মূল্যে বৃদ্ধির সংবাদ গ্রামাঞ্চলে ছড়িয়ে পরলে সর্বত্র লবন ক্রয়ের হিড়িক পরেছে। বিভিন্ন বাজার ঘুরে বেশি দামে লবন বিক্রির যৌক্তিক কোন কারন খুঁজে পাওয়া যায়নি।

ইতোমধ্যে বাবুগঞ্জ আইনশৃংখলা বাহিনী বাজারে বাজারে নেমে গেছে।বাবুগঞ্জের দেহেরগতি ইউয়নের বাহেরচর প্রতিটি দোকানে শুদ্ধি অভিজান চালায় বাবুগঞ্জ থানার এস আই আলমগীর হোসেন হাওলাদার এবং স্থানিয় জাতীয় পার্টি নেতা মোঃ সোহাগ মল্লিকের নেতৃত্বে এলাকার জনগন নিয়ে, আইনশৃংখলা বাহির সাথে বাজারে নেমে প্রশাসন কে সহযগিতা করেন। সেই সাথে বাবুগঞ্জ থানা পুলিশ প্যাকেটের গায়ে নির্ধারিত মূল্য অনুযায়ী লবন বিক্রির নির্দেশ দেন।এই পদক্ষেপে এলাকার জনগন আনন্দে মুখরিত।এবং বাবুগঞ্জ থানার ও,সি মিজানুর রহমান স্যার কে সকল জনগন সাধুবাদ জানান।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এসব ব্যবসায়ী সিন্ডিকেটসহ এর সাথে যারা জড়িত তাদের বিরুদ্ধে খুব শীঘ্রই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলেও মনে করছেন সচেতন বরিশালবাসী।

এ বিষয় বাবুগঞ্জ থানার ও,সি মিজানুর রহমান বলেন দাম বাড়ার কোন কারণ নেই। গুজব ছড়িয়ে যারা বেশি দামে লবণ বিক্রি করবে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


রিয়াজ পাটওয়ারী

প্রধান ‍উপদেষ্টা: মো: ‍আবু তালেব মিয়া
প্রকাশক: মো: ‍ইনাম মাহমুদ
সম্পাদক : রিয়াজ পাটওয়ারী
যুগ্ম সম্পাদক: খান আব্বাস
প্রধান সম্পাদক: মো: কামরুল ইসলাম
সহ সম্পাদক: শরিফুল আলম সোহেল
নির্বাহী সম্পাদক: শাহাদাত তালুকদার
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: এম এইচ প্রিন্স
Desing & Developed BY Engineer BD Network